BIGtheme.net http://bigtheme.net/ecommerce/opencart OpenCart Templates
সংবাদ শিরোনাম
Home / ইউনিয়ন সংবাদ / সন্দ্বীপ রিসোর্স সেন্টারের উদ্যোগে প্রাথমিক শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ সমাপ্ত

সন্দ্বীপ রিসোর্স সেন্টারের উদ্যোগে প্রাথমিক শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ সমাপ্ত

সাইফুল ইসলাম ইনসাফ , সন্দ্বীপ থেকে, সীতাকুণ্ড টাইমস ঃ

সন্দ্বীপ উপজেলা রিসোর্স সেন্টারের উদ্যোগে প্রধান শিক্ষকদের লিডারশীপ প্রশিক্ষণ,নবনিয়োগ প্রাপ্ত শিক্ষকদের ইনডাকশন প্রশিক্ষণ,যোগ্যতার ভিত্তিক প্রশিক্ষণ সম্প্রতি উপজেলা প্রশিক্ষণ সেন্টারে সমাপ্ত হয়েছে। প্রশিক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন ইন্সট্রাক্টর মোঃ রুহুল্ আমীন এবং উপজেলা শিক্ষা অফিসার (ভার.) মোহাম্মদ মাঈনউদ্দিন ।
প্রধান শিক্ষকদের লিডারশীপ প্রশিক্ষণে সন্দ্বীপ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ নুরুল হুদা বলেনÑএকজন লিডার (প্রধানশিক্ষক) নিজ প্রতিষ্ঠানে এমন পরিবেশ সৃষ্টি করতে পারেন যাতে অভিভাবকগণ তাদের সন্তানকে অন্য প্রতিষ্ঠানে না দিয়ে আপনার প্রতিষ্ঠানে ভর্তি করানোর জন্য উদগ্রীব থাকে । এখানে এসব বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে । সন্দ্বীপ উপজেলা রিসোর্স সেন্টার শুধু শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়নের কাজে সীমাবদ্ধ না থেকে সামাজিক প্রতিষ্টান হিসেবে প্রশিক্ষণার্থীদের সহায়তায় শীতবস্ত্রও বিতরণ করে। এমনকি ক্যান্সার আক্রান্ত শিক্ষকদেরকে ও আর্র্থিক সহযোগিতা করেছে যারা চিকিৎসা গ্রহণের মাধ্যমে বিদ্যালয়ে অদ্যাবধিও কাজ করে যাচ্ছেন । আনজুমানে মফিদুল ইসলামের মত একটি প্রতিষ্ঠান সন্দ্বীপে প্রতিষ্ঠার জন্য ইউ.এন.ও.মহোদয়কে আহ্বান জানানো হলে তিনি চেষ্টা করবেন বলে আশ্বাস দেন । উল্লেখ্য,ইন্সট্রাকটর এরকম একটি প্রতিষ্টান স্থাপনের জন্য শিক্ষকদের অনুরোধ করেছিলেন এবং ৫০০০/ টাকাও উক্ত খাতে জমা রেখেছিলেন । এসব জেনে তিনি ইউ.আর.সি.র সফলতা কামনা করেন।

প্রশিক্ষণার্থীদের কে প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞান ব্যবহার করে শিক্ষার্থীদের কাছে কঠিন বিষয় সহজভাবে বুঝিয়ে দেয়ার জন্য বিশেষ গুরুত্ব দিয়েছে প্রশিক্ষকবৃন্দ । এজন্য পাঠদানের আগে পূর্ব প্রস্তুতি ,পাঠ-টীকা তৈরী ,উপকরণ সহ পাঠদান,প্রযোজ্য ্েক্ষত্রে ডিজিটাল কনটেন্ট পাঠদান,প্রাসংগিক নিত্য নতুন ধারণা উপস্থাপন পূর্বক শিক্ষার্থীদের কে শেখানোর জন্য উদÍুদ্ধ করা হয়েছে । প্রশিক্ষণে তাত্ত্বিক আলোচনার পাশাপাশি ব্যবহারিক দিকও অনুশীলনের মাধ্যমে প্রশিক্ষণার্থীদের কে সমৃদ্ধ করা হয় । সঠিক সময়ে বিদ্যালয়ে আগমন-প্রস্থান নিশ্চিত করতে অনুরোধ করা হয় । প্রতিদিন অন্ততঃ একটি করে ইংরেজী শব্দ বানান এবং অর্থসহ শেখানোর মাধ্যমে প্রতিজন শিক্ষার্থীকে ইংরেজী রিডিং পড়া নিশ্চিতকরণ এবং বাংলা রিডিং পড়াও নিশ্চিতকরণের জন্য অনুরোধ করা হয় । উক্ত কাজগুলি নিশ্চিতকরণের জন্য বিভিন্ন কলাকৌশল যেমন-শিক্ষক নিজে শিখানো, শিক্ষার্থী দিয়ে শিক্ষার্থীদেরকে শিখানো,নিরাময়মূলক পাঠদান,্উপকরণের মাধ্যমে শিখানো , বিভিন্ন গেইমের মাধ্যমে শিখানো, একক কাজ,দলীয়কাজ,ব্যবহারিক কাজ ,বুদ্ধিমত্ত্বাভিত্তিক কাজ ,শ্রুতি-লিখন,অভিজ্ঞতা বিনিময় ইত্যাদি বিষয়ে আলোকপাত করা হয়েছে প্রশিক্ষণে । এস,এম.সি, অভিভাবক, শিক্ষার্থীসহ,প্রাসংগিক সংশ্লিষ্ট সকলের নিবিড় সহযোগিতায় প্রতিজন শিশুর জন্য মানসম্মত শিক্ষা নিশ্চিত করতে অব্যাহতভাবে প্রচেষ্ঠা চালিয়ে যাবার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে । ২০১৯ সালের পি.এস.সি. পরীক্ষায় শতভাগ পাশসহ ভাল /অত্যাধিক ভাল ফলাফল অর্জনের জন্য ৫ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদেরকে প্রযোজ্য ক্ষেত্রে মেধাভিত্তিক গ্রুপে ভাগ করে প্রয়োজনে বন্ধের দিনও পাঠদান করার জন্য শিক্ষকদেরকে পরিকল্পনা করতে হবে। উল্লেখ্য, ২০১৭ এবং ২০১৮ সালেও সন্দ্বীপে বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষকগণ নিয়মিত বিশেষ কøাস ,শুক্রবারসহ অন্যান্য বন্ধের দিন ও পাঠদান করেছেন । বিশেষকরে ২০১৭ এবং ২০১৮ সালে পি.এস.সি.পরীক্ষায় গণিত পরীক্ষার আগে শুক্রবার বন্ধের দিনও রস্ক প্রকল্পের শিক্ষকসহ ,সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষক একযোগে পাঠদান করেছেন । প্রশিক্ষণে উক্ত বিষয়টি স্মরণ করে দিয়ে ২০১৯ সালের পি. এস.সি.পরীক্ষায়ও গণিত পরীক্ষার আগে একইভাবে শুক্রবারে (রুটিন দেয়া সাপেক্ষে) একযোগে ১৫০ বিদ্যালয়ে পাঠদানের জন্য অনুরোধ করা হয়েছে । যা একটি বিশেষ রেকর্ড হতে পারে । এমনকি এটি একটি গ্রীনিচ রেকর্ড হতে পারে । এভাবে সারা দেশে সকল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় একযোগে একই সময়ে গণিত পাঠদান করে আরও বড় আকারে গ্রীনিচ রেকর্ড করতে পারে । এমনকি বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিও একযোগে পাঠদান করতে পারে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *